‘আধুনিক বাংলাদেশের নির্মাতা হিসেবে শিক্ষার্থীদের গড়ে তুলতে হবে’

শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে সামাজিক আন্দোলন গড়ে তুলতে এবং আধুনিক বাংলাদেশের নির্মাতা হিসেবে নতুন প্রজন্মকে যথাযথ শিক্ষায় শিক্ষিত করতে শিক্ষার অনুকূল পরিবেশ সৃষ্টি করার ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন। তিনি বলেন, অশুভ শক্তির কবল থেকে শিক্ষার্থীদের রক্ষা এবং শান্তির ধর্ম ইসলামের অবমাননা করা থেকে রক্ষা করতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রধানগণ, শিক্ষক, ওলামা-মাশায়েক, অভিভাবক ও সকল নাগরিককে সতর্ক থাকতে হবে এবং এ লক্ষ্যে কাজ করতে হবে। শিক্ষামন্ত্রী আজ বিকেলে নগরীতে রংপুর জেলা স্কুল মাঠে আয়োজিত ‘শিক্ষার পরিবেশ উন্নয়ন এবং জঙ্গিবাদ মুক্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান’ শিরোনামে এক সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।

দিনাজপুর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড আয়োজিত এই সমাবেশে রংপুর বিভাগের সকল স্তরের মাধ্যমিক, উচ্চমাধ্যমিক, ডিগ্রি পর্যায়, স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসা এবং কারিগরি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধানগণ যোগ দেন। অনুষ্ঠানে অধ্যাপক গোলাম মোস্তফা এমপি, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব চৌধুরী নুফাৎ আহমেদ, বিভাগীয় কমিশনার কাজী হাসান আহমেদ, রংপুর রেঞ্জের ডিআইজি খন্দকার গোলাম ফারুক, মাদ্রাসা শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বিল্লাল হোসেন, ডেপুটি কমিশনার রাহাত আনোয়ার, পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন। অনুষ্ঠানের শুরুতে বিভিন্ন স্কুল, কলেজ ও মাদ্রাসার প্রধানগণ আলোচনায় অংশ নেন। তারা জঙ্গিমুক্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলতে এবং শিক্ষার অনুকূল পরিবেশ সৃষ্টিতে তাদের পরামর্শ তুলে ধরেন।

অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান জঙ্গিমুক্ত রাখতে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের ওপর নজর রাখতে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধান ও শিক্ষকদের প্রতি আহবান জানান। অনুষ্ঠানে ওলামা মাশায়েক, ইমাম এবং ইসলামী চিন্তাবিদগণ বলেন, ধর্মের সাথে জঙ্গিবাদের কোন সম্পর্ক নেই এবং নিরীহ লোকদের হত্যা করে জঙ্গিরা কখনো বেহেস্তে যাবে না। শিক্ষামন্ত্রী বলেন, কিছু স্বার্থান্বেষি মহল দেশকে অস্থিতিশীল করতে এবং দেশের অর্থনীতি ধ্বংস করার জন্য জঙ্গিবাদে সম্পৃক্ত করতে ইসলামের অপব্যাখ্যা দিয়ে কিছু শিক্ষার্থীদের বিভ্রান্ত করছে। শিক্ষামন্ত্রী বলেন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোকে জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে সামাজিক আন্দোলন গড়ে তুলতে বাঙালি সংস্কৃতি, ঐতিহ্য, ইতিহাস এবং খেলাধূলা, বিতর্ক ও অন্যান্য প্রতিযোগিতার মতো বিভিন্ন কর্মকান্ডে সম্পৃক্ত হতে হবে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।