‘রোহিঙ্গা নির্যাতনের মতোই ছিল একাত্তরের বর্বরতা’-খালিদ মাহমুদ চৌধুরী

পৃথিবীতে যেখানেই মানবতাবিরোধী অপরাধ এর বিরুদ্ধে সবসময়ই সোচ্চার থাকবে আওয়ামী লীগ এ কথা জানিয়েছেন দলটির সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী।

শনিবার বিকালে বিরল উপজেলা অডিটোরিয়াম মিলনায়তন থেকে ১৯টি গ্রামের বিদ্যুতায়নের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এ মন্তব্য করেন।

খালিদ মাহমুদ বলেন, ‘রোহিঙ্গাদের ওপর যে হামলা হচ্ছে ১৯৭১ সালে আমাদের মা-বোনদের ওপর আরও বেশি বর্বর হামলা হয়েছে। আজ অনেকেই এ ইস্যুতে কথা বলছে। কিন্তু বাংলাদেশে যে বর্বর হামলা হয়েছিল সে বিষয়ে কোনো কথা বলছে না। আমরা রোহিঙ্গাদের ওপর বর্বরোচিত হামলার বিচার চাই। ঠিক তেমনিভাবে বাংলাদেশে যে মানবতাবিরোধী অপরাধ হয়েছে এর সঙ্গে জড়িতদেরও বিচার করা হচ্ছে।’
তিনি বলেন, মানবতাবিরোধী বর্বরতা কী ধরনের হতে পারে সেটা আমরা বুঝি। কারণ অতীতে আমাদের ওপর এ ধরনের হামলা হয়েছে।

আওয়ামী লীগের এ নেতা বলেন, ‘বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে বাংলাদেশে যে মানবতাবিরোধী কর্মকাণ্ড, আগুনে মানুষ পুড়িয়ে মারা এবং জঙ্গি কর্মকাণ্ড হয়েছে এর বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলে জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশকে মধ্যম আয়ের পরিণত করতে চাই।’

খালিদ বলেন, ‘আগামী জাতীয় নির্বাচনে মুক্তিযুদ্ধের স্বপক্ষের শক্তির বিজয়ী হলে বাংলাদেশকে নিয়ে কোনো ষড়যন্ত্রকারী মাথা তুলে দাঁড়াতে পারবে না।’

দিনাজপুর পল্লীবিদ্যুৎ সমিতি-১ জেনারেল ম্যানেজার কাজী মোহাম্মদ আলীর সভাপতিত্বে আরও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নিবাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত ) মেজবাউল হোসেন, বিরল উপজেলা পল্লী বিদ্যুৎ ডিজিএম মোস্তাফিজুর রহমান, বিরল আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আব্দুর লতিফ, সাধারণ সম্পাদক এ,কে,এম মোস্তাফিজুর রহমান বাবু, সহসভপতি আবুল কাশেম অরু, সবুজার সিদ্দিক সাগর, যুগ্ম সম্পাদক উমাকান্ত রায়, উপজেলা যুবলীগ সভাপতি আব্দুল মালেক মাস্টার প্রমুখ।

dhakatimes24

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।